অনলাইন সার্ভে করে ইনকাম করার পদ্ধতি

অনলাইনের মাধ্যমে সার্ভে করে আপনি মাসে মিনিমাম ৩০,০০০-৪০০০০ টাকা ইনকাম করতে পারবেন। তার জন্য আপনাকে ধৈর্য সহকারে প্রতিদিন ৩ থেকে ৪ ঘন্টা সময় দিতে হবে । তার আগে জেনে নিই সার্ভে কি এবং কিভাবে করে?

সার্ভে হলো কোনো কিছুর উপর জরিপ করা, উদাহরণ স্বরূপ মনে করুন আপনার একটি ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান আছে। সেই প্রতিষ্ঠানে কত জন কমচারী কাজ করে, মাসে তাদের বেতন কত, দৈনিক কত ঘন্টা কাজ করে, সাপ্তাহিক ছুটি কোন দিন, কাজে আসা ও যাওয়ার সময় ইত্যাদি নিয়ে যেসব তথ্য সংগ্রহ করা হয় তাই সার্ভে বা জরিপ। আর্ন্তজাতিক অনেকগুলো জরিপ সংস্থা আছে যারা বর্তমানে অনলাইনের মাধ্যমে জরিপ কাজ সংগ্রহ করে থাকে। আর এসব জরিপ যারা করে দেয় তাদেরকে জরিপ সংস্থা টাকা পেমেন্ট করে থাকে। আন্তজার্তিক কয়েকটি জরিপ সংস্থা হলো---ইউনিসেফ, ইউনেস্কো, গ্যালাপ ইত্যাদি তারা জরিপের মাধ্যমে বিভিন্ন দেশ ও মানুষকে সাহায্য করে থাকে। যদিও উল্লেখিত সংস্থা গুলোর ইন্টারনেটে সার্ভে সাইট নেই। তারা অন্য ভাবে সার্ভে করে থাকে।



নিচে অনেক গুলো সার্ভে সাইট এড করে দিলাম। উক্ত সাইট গুলোতে আপনার একাউন্ট খুলে সার্ভে করতে পারেন। আমার পরামর্শ থাকবে প্রত্যেকটি সাইট সর্ম্পকে প্রথমে গুগল থেকে রিভিউ জেনে তারপর শুরু করবেন।

অনলাইন সার্ভে করতে হলে যেসব প্রয়োজনীয় জিনিসগুলো আপনার লাগবে তা হলো। ইন্টারনেট সহ একটি ডেক্সটপ কম্পিউটার অথবা একটি ল্যাপটপ এবং একটি ইমেইল এড্রেস ও ক্ষেত্রবিশেষ ভেরিফিকেশনের জন্য মোবাইল নাম্বার। সব যদি পূর্বে থাকে তাহলে আপনার কম্পিউটারে ইন্টারনেট কানেকশান দিয়ে আপনার সুবিধা অনুযায়ী যে সার্ভে সাইটি ভালো হবে সেই ওয়েব সাইটে গিয়ে আপনার প্রয়োজনীয় সব ইনফরমেশন দিয়ে সাইন আপ করে একাউন্ট খুলতে হবে।

পৃথিবীজুড়ে হাজারো সার্ভে সাইট আছে, সবগুলোতেই আপনি ইচ্ছা করলে একাউন্ট খুলতে পারবেন। এবং টাকা ইনকাম করতে পারবেন। তবে আমি সাজেস্ট করবো যেসব সাইটের রিভিউ ভালো সেসব সাইটে কাজ করার জন্য। তাছাড়াও বিভিন্ন দেশ ভিত্তিক সাভে সাইট রয়েছে সেগুলোতেও ভিপিএন এর সাহায্য কাজ করতে পারবেন। আবার কিছু সাইট আছ সেগুলো ভিপিএন ছাড়াই সরাসরি কাজ করতে পারবেন।আপনি একজন নতুন হিসেবে জনপ্রিয় নিচের সাইটগুলোতে একাউন্ট করে চেস্টা করে দেখতে পারেন।

উল্লেখিত কিছু সাইট বাংলাদেশে হয়তো সাপোর্ট নাও করতে পারে এজন্য আপনাকে ভিপিএন দিয়ে এগুলোতে প্রবেশ করতে হবে। বাংলাদেশে অনেক ভিপিএন সার্ভিস প্রোভাইডার আছে যারা টাকার বিনিময়ে ভিপিএন সেবা দিয়ে থাকে।একাউন্ট খোলা হয়ে গেলেই আপনি কাজ শুরু করে দিতে পারেন। সব সাইটে সব সময় সার্ভে থাকে না। সার্ভে সাইট গুলো তাদের সুবিধা অনুযায়ী সার্ভে আপডেট দিয়ে থাকে। যখন আপনার একাউন্ট ডেসবোর্ডে সার্ভেথাকবে তখন সার্ভে করতে পারবেন। না থাকলে নতুন সার্ভের জন্য অপেক্ষা করতে হবে। সার্ভে ছাড়াও রেফারেল, ভিডিও আপলোড, কনটেন্ট লিখেও এসব সাইট থেকে আয় করা যায়। একজন বিগেইনার হিসেবে আমি সাজেস্ট করবো আপনি আগে শুরু করুন। প্রতিদিন একটু একটু করে কাজ করুন, একসময় সব কিছু বুঝে যাবেন।

আর যদি শুরুই না করেন তাহলে কিছু বুঝবেনও না শিখতেও পারবেন না। প্রথমে হতাশ হয়ে হাল ছেড়ে দিবেন না। কাজ করুন ধীরে ধীরে অভিজ্ঞতা অর্জন করুন। তারপর প্রফেশনালীভাবে শুরু করুন। অনলাইনে অনেক সার্ভে সাইট আছে যারা পেইড সার্ভে করে থাকে। তার মানে হলো আপনি যদি তাদের থেকে টাকা দিয়ে প্যকেজ কিনেন তাহলে তারা আপনার জন্য আনলিমিটেড সার্ভে দিবে। এতে করে তাদেরও লাভ হলো আপনিও অনেক টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

এসব সাইট কিভাবে পেমেন্ট করে থাকে?অনেক সাইট পেপাল এর মাধ্যমে আবার অনেক সাইট আছে বিটকয়েন অথবা গিফট কার্ড ও ব্যাংকের মাধ্যমেও পেমেন্ট করে থাকে। পেমেন্ট নিয়ে আপনার ভাবতে হবেনা। ঠিক মতো কাজ করে যান আপনি নিজেই বুঝে যাবেন কিভাবে টাকা পেমেন্ট নিবেন। এছাড়া আমিতো আছিই। যেকোনো সমস্যা না কোনো কিছু না বুঝলে কমেন্ট করতে পারেন চেস্টা করবো সহযোগিতা করার। লেখায় কোনো ধরনের ভুল হয়ে থাকলে দয়া করে পরামশ দিবেন। অথবা আমার থেকেও আরো যারা এডভান্স তাদের কাছ থেকে সহযোগিতা আশা করছি। আজ এ পর্যন্তই।


ধন্যবাদ
মামুন সরকার

Post a Comment

অপেক্ষাকৃত নতুন পুরনো